প্রচ্ছদ

যাদুকাটায় থামছে না বোমা মেশিনের তান্ডব

Eurobanglanews24.com

সুনামগঞ্জের তাহিরপুর উপজেলার যাদুকাটা নদীতে অবৈধভাবে ড্রেজার ও বোমা মেশিনের মাধ্যমে দিনে রাতে বালু ও পাথর উত্তোলন করছে সিন্ডিকেট চক্রের লোকেরা। প্রতিদিন ১৫০/২০০ বোমা মেশিন দিয়ে এসব বালু পাথর উত্তোলন করা হচ্ছে। এ বিষয়ে জেলা প্রশাসনের নির্দেশ থাকা সত্ত্বেও স্থানীয় প্রশাসন অভিযান চালিয়েও বন্ধ করতে পারেনি বালু ও পাথর উত্তোলন। এই সিন্ডিকেট চক্রের লোকেরা বালু ও পাথর উত্তোলনে হিংস্ররুপ ধারন করছে।

 

তবে স্থানীয়দের অভিযোগ উপজেলা প্রশাসনের সাথে তাদের যোগসাজস রয়েছে। যার ফলে জেলা প্রশাসকের নির্দেশকে কোনো তোয়াক্কা না করে অবাধে বালু ও পাথর উত্তোলন করে পরিবেশের ভারসাম্য নষ্ট করছে।

 

এদিকে এই বালূ ও পাথর উত্তোলনের ফলে যাদুকাটার নদীর তীরবর্তী বসতভিটা ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান হুমকির মুখে পড়েছে। স্থানীয় প্রশাসনের দাবী প্রতিদিনই অভিযান চালানো হচ্ছে। তবে অভিযান পরিচালনার আগেই বালু ও পাথর উত্তোলনকারীরা পালিয়ে যায়। প্রশাসনের এই বক্তব্য মানতে নারাজ স্থানীয় লোকেরা। তাদের দাবী প্রশাসনের কিছু অসাধু কর্মকর্তাদের সাথে এই সিন্ডিকেটের যোগাযোগ রয়েছে। ফলে অভিযানের খবর পেয়ে তারা পালিয়ে যায়।

 

স্থানীয়রা জানান, যাদুকাটা নদীতে প্রতিদিনই দেড়শ থেকে দুইশ বোমা ও ড্রেজার দিয়ে প্রকাশ্যে বালু উত্তোলন চলছে। এসব বোমা মেশিন বন্ধে স্থানীয় প্রশাসনের কোনো উদ্যোগ নেই। পাথর উত্তোলনকারীদের সাথে যোগাযোগ করে লোক দেখানো অভিযান করা হয় বলে তারা জানান।

 

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও তাহিরপুর উপজেলা সহকারি ভূমি কমিশনার (এ্যাসিল্যান্ড) মনতাসির হাসান জানান, আমরা প্রতিদিনই অভিযান পরিচালনা করছি।

 

গত ৯ মে বৃহস্পতিবার অভিযান চালিয়েও ১৩টি বোমা মেশিন ভাংচুর করা হয়েছে। এছাড়াও সোমবার (১৩ মে) এবং মঙ্গলবার (১৪ মে) অভিযান চালানো হয়েছে। তবে এসময় কাউকে পাওয়া যায়নি। হয়তো অভিযানের খবর পেয়ে পালিয়ে গেছে।

আর্কাইভ

মে ২০১৯
সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
« এপ্রিল    
 
১০১১১২
১৩১৪১৫১৬১৭১৮১৯
২০২১২২২৩২৪২৫২৬
২৭২৮২৯৩০৩১